Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : ১৩ জুন, ২০১৮ ১৫:১৫ অনলাইন ভার্সন
এশিয়া রেস্পন্সিবল এন্টারপ্রাইজ অ্যাওয়ার্ড পেল বিএটি বাংলাদেশ
প্রেস বিজ্ঞপ্তি
এশিয়া রেস্পন্সিবল এন্টারপ্রাইজ অ্যাওয়ার্ড পেল বিএটি বাংলাদেশ

ব্রিটিশ আমেরিকান টোব্যাকো (বিএটি) বাংলাদেশ আবারও আন্তর্জাতিক সম্মান অর্জন করেছে। গ্রীণ লিডারশীপ ক্যাটাগরিতে তাদের সিএসআর উদ্যোগ 'দীপ্ত' এর জন্য এশিয়া রেস্পন্সিবল এন্টারপ্রাইজ অ্যাওয়ার্ড ২০১৮ (এআরইএ) পেল বিএটি।  

সম্প্রতি ফিলিপাইনের ম্যানিলায় অনুষ্ঠিত সিএসআর সামিট ২০১৮-এ এই স্বীকৃতিটি প্রদান করা হয়। 

বিএটি বাংলাদেশের হেড অব লিগ্যাল অ্যান্ড এক্সারনাল অ্যাফেয়ার্স মুবিনা আসাফ প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে পুরস্কারটি গ্রহণ করেন। সিএসআর উদ্যোগের মাধ্যমে সক্রিয় অবদান রাখবার জন্য এন্টারপ্রাইজ এশিয়া কর্তৃক এটি বিএটি বাংলাদেশের জন্য ধারাবাহিক তৃতীয় স্বীকৃতি। 

পার্বত্য চট্টগ্রামে অফ গ্রিড এলাকায় বিদ্যুৎ নিয়ে আসার জন্য নবায়নযোগ্য শক্তি ব্যবহার করার একটি সহজ এবং সাশ্রয়ী মূল্যের পদ্ধতি হিসেবে ২০১১ সালে চালু হয় দীপ্ত। বান্দরবান, খাগড়াছড়ি ও রাঙামাটি জেলার ২৩টি গ্রামে ২,০৬৪টি সোলার হোম সিস্টেম সংযুক্ত করা হয়েছে ১২,০০০ এর বেশি মানুষের বিদ্যুৎ সরবরাহের জন্য। দীপ্ত সুবিধাবঞ্চিত মানুষদের সামাজিক ও অর্থনৈতিক অবস্থার পরিবর্তন এনে তাদের জীবনযাপনের ব্যবস্থার উন্নতিতে সক্রিয় ভূমিকা রেখেছে।

মুবিনা আসাফ বলেন, এটি বিএটি বাংলাদেশের জন্য অত্যন্ত গৌরবময় মুহূর্ত। আমরা ১৯৮০ সাল থেকে চার দশক ধরে বাংলাদেশে সিএসআর উদ্যোগের ক্ষেত্রে পথিকৃতের ভূমিকা পালন করে আসছি। আমাদের প্রধান তিনটি সিএসআর প্রোগ্রাম রয়েছে, যা ইউএন এর ১৭টি এসডিজি এর মধ্যে ৯টিতে ভূমিকা রাখে এবং বাংলাদেশের জাতীয় লক্ষ্যের সাথেও সমন্বয় রয়েছে। বাংলাদেশে বিশ্বমানের সিএসআর অভিজ্ঞতা প্রদানে আমাদের প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে।

'সামিটে অনুষ্ঠিত প্যানেল ডিসকাশন 'ব্যবসার জন্য স্থিতিস্থাপক অবস্থাঃ আমাদের শেষ কোথায়' এর অন্যতম বক্তা ছিলেন মুবিনা আসাফ।

বিডি প্রতিদিন/১৩ জুন ২০১৮/আরাফাত

আপনার মন্তব্য

এই পাতার আরো খবর
up-arrow